অান্তর্জাতিক

ভারতে আঘাত হেনেছে তিতলি….

ঘণ্টায় ১৪৫ কিলোমিটার বেগে ভারতের উড়িষ্যা ও অন্ধ্রের উপকূলে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় তিতলি।বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে পাঁচটার রাজ্যটি দুটির উপকূলে ঘূর্ণিঝড়টি আঘাত হানে বলে দেশটির আবহাওয়া দপ্তরের বরাত দিয়ে জানিয়েছে আনন্দবাজার।ভারতের আবহাওয়া দপ্তর জানায়, বঙ্গোপসাগরের ওপরে অবস্থান করা গভীর নিম্নচাপটি শক্তি বাড়িয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। জরুরি বৈঠকে বসেছেন উড়িষ্যার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়ক।আরও জানায়, গঞ্জাম, পুরী, খুরদা, কেন্দ্রাপড়া ও জগৎসিংহপুর থেকে বাসিন্দাদের নিরাপদ স্থানে সরানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে। আজ এবং আগামীকাল গজপতি, গঞ্জাম, পুরী ও জগৎসিংহপুরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের ঘোষণা করা হয়েছে।প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে, উড়িষ্যার গোপালপুরে আঘাত হানার সময় ঝড়ের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১০২ কিলোমিটার। অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীকাকুলামে আঘাত হানার সময় এর গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১৪০-১৬০ কিলোমিটার।এর আগে গতকাল আবহাওয়া দপ্তর জানায়, বুধবার রাত থেকে দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূল ঘণ্টায় ১৪০-১৫০ কিলোমিটার বেগে ঝড় প্রবাহিত হবে। ঘণ্টায় ১৬৫ কিলোমিটারও হতে পারে। দক্ষিণ উপকূলে ৭০-৮০ কিলোমিটার বেগে ঝড়ের আশঙ্কা রয়েছে।সমুদ্র অশান্ত থাকায় শুক্রবার পর্যন্ত উড়িষ্যা উপকূল এবং মধ্য ও উত্তর বঙ্গোপসাগর সংলগ্ন এলাকার জেলেদের সতর্ক করা হয়েছে বলেও জানায় এই দপ্তর।দপ্তরের কর্মকর্তা এইচ আর বিশ্বাস বলেন, আগামী ১৮ ঘণ্টায় আরও শক্তি বাড়াবে ঘূর্ণিঝড়টি। আগামীকাল ভোরে উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমে সরে গোপালপুর ও কলিঙ্গপত্তনম হয়ে উড়িষ্যা ও অন্ধ্রপ্রদেশ পৌঁছাবে এটি। এরপর গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের দিকে সরতে সরতে শক্তি কমবে তিতলির।এদিকে ভারী বৃষ্টির ফলে বন্যার আশঙ্কায় উড়িষ্যার প্রতিটি জেলায় সতর্কতা জারি করেছে প্রশাসন। মুখ্য সচিব এ পি পাধি জানান, দুর্যোগে একজনও যেন মারা যায়, তার প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে।বিশেষ ত্রাণ-কমিশনার বিপি শেট্টি জানান, বিপজ্জনক ও নিচু এলাকাগুলো থেকে বাসিন্দাদের সরানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। উদ্ধারকাজে সহায়তার জন্য প্রস্তুত আছে ৩০০টি মোটর বোট।তিনি জানান, জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর ছয়টি দল, উড়িষ্যার র‌্যাপিড অ্যাকশন ফোর্সের ১১টি দল ও দমকল বাহিনী প্রস্তুত আছে। বিশাখাপত্তমন থেকে নৌবাহিনীর বিশেষ ডুবুরি দল চিল্কায় গেছে।সেখানে চিকিৎসকদের একটি দল প্রস্তুত রাখা হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *